জল ‘লিক’ করায় গুজরাটে বন্ধ হল কাকরাপার পরমাণু বিদ্যুত কেন্দ্র

জল ‘লিক’ করায় বন্ধ করে দিতে হল গুজরাটের ২২০ মেগাওয়াটের কাকরাপার পরমাণু বিদ্যুত কেন্দ্রটি। কর্তৃপক্ষের দাবি এই দুর্ঘটনার জেরে কোন শ্রমিকের শরীরে কোন পরমাণু তেজষ্ক্রিয়তার প্রভাব পড়ে নি।  শারীরিক  পরীক্ষার পরই তাঁদের বাড়িতে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হবে। দেশে পরমাণু চুল্লি ব্যবহার নিয়ে বারবার প্রশ্ন উঠলে কোন সরকারই কোন কথা শুনতে নারাজ। আশা করা যাক এদিনের দুর্ঘটনা ছোটখাট কিন্তু বড় ঘটলে কী হবে। ভুলে গেলে চলবে না ভূপাল গ্যাস দুর্ঘটনার ক্ষত শরীরে এখনও বয়ে নিয়ে চলেছে মানুষ। সেটা ছিল গ্যাস লিক, আর এক্ষেত্রে পরমাণু..। ভাবলেও আতকে উঠতে হয়। জার্মানি যখন পরমাণু চুল্লি বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিচ্ছে ভারতের কীসের দায় একে বহন করা?

সৌজন্যে NDTV