জাপানের সঙ্গে ভারতের অসামরিক পরমাণু চুক্তি কি সত্যি ঐতিহাসিক?

0
6

অসামরিক ক্ষেত্রে পরমাণু শক্তি ব্যবহারের জন্য জাপানের সঙ্গে ভারতের চুক্তি হল। একে ঐতিহাসিক বলে ব্যাখ্যা করা হচ্ছে জাতীয় মিডিয়ার তরফে। এর ফলে অসামরিক ক্ষেত্রে  ভারতকে পরমাণু প্রযুক্তি, জ্বালানী ও চুল্লি বিক্রি করতে আর বাধা রইল না জাপানের। সেদেশে ভারতের সঙ্গে পরমাণু শক্তির বাণিজ্য নিয়ে একটা অংশের আপত্তি ছিল বলে জানা যাচ্ছে। কারণ ভারত NPT তে সই না করা সত্ত্বেও জাপান  চুক্তি করায় একে ঐতিহাসিক বলে প্রচার করা হচ্ছে। কিন্তু দেখা যাচ্ছে এর ফলে জাপানের তোসিবা, হিতাচির মত কোম্পানি বা যে সব জাপানি সংস্থার বিনিয়োগ মার্কিন সংস্থা GE তে রয়েছে তারাই উপকৃত হবে। বিশ্বের একাধিক দেশ যখন  ঝুঁকিপূর্ণ পরমাণু বিদ্যুতের ব্যবহার থেকে পিছিয়ে আসছে তখন ভারতের সরকার তাকে নতুন করে গ্রহণ করছে। বাড়ছে অন্যিদের বাজার। এর মধ্যে ঐতিহাসিক কী আছে বোঝা গেল না! রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের একাংশেক মত পাকিস্তান ও চিন কাছাকাছি আসায় ,জাপানের সঙ্গে ভারতের গা ঘষাঘষি বাড়াছে। অন্যদিকে  বিশ্ববাজারে আগ্রসী চিনকে কিছুকে ধাক্কা দিতেই ভারতকে কাছে পেতে চাইছে জাপান। বুলেট ট্রেন থেকে পরমাণু চু্ক্তি তারই ফসল।

ছবি বিদেশমন্ত্রকের সৌজন্যে