৫০০ কোটি বিয়ে ও আয়কর হানা

0
5

৫০০ কোটি টাকা খরচ করে বিয়ে হল আর তার পরই জনার্ধন রেড্ডির দফতরে হানা দিল আয়কর দফতরের কর্মীরা। অসাধারণ টাইমিং। মিডিয়ার দৌলতে দুনিয়ার সবাই যখন বিজেপির প্রাক্তন মন্ত্রী তথা খনি মাফিয়ার মেয়ের বিয়ের খরচের বহর সম্পর্কে ওয়াকিবহাল ছিল তখন আয়কর দফতর তিথি দেখছিল হানা দেওয়ার জন্য। যেন খরচের টাকাটা বিয়ের কটা দিনেই কালো হয়েছে। আসলে জনার্ধন রেড্ডির সঙ্গে বিজেপির ঘনিষ্ঠতা সকলেরই জানা। দেশের বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ যখন বেলারি থেকে লোকসভায় সনিয়ার বিরুদ্ধে ভোটে লড়েছিলেন তখন জনতার থেকে জনার্ধনেই ছিল তাঁর বেশি ভরসা। এখনও বিজেপি নেতা ইয়েদুরাপ্পার ঘনিষ্ঠ জামিনে মুক্ত এই জনার্ধন। জনার্ধনের মদতেই ২০১৪ সালে বিজেপি টিকিটে সাংসদ হয়েছেন শ্রীরামালু। অনেকেই বলেন বিজেপির জোরের থেকে জনার্ধনের নোটের দৌলতেই বেল্লারি থেকে লোকসভায় গেছেন শ্রীরামালু।  বিজেপির এক সময়ের মন্ত্রীর সঙ্গে কংগ্রেসের যোগাযোগও মধুর। অন্ধ্রের প্রয়াত মুখ্যমন্ত্রী ওয়াইস আর রেড্ডির দৌলতেই জনার্ধনের অবৈধ খনি সাম্রাজ্যের বাড়বাড়ন্ত।  তাই  অনেকেই বলছেন আয়কর হানা স্রেফ চোখে ধুলো দিতে। খনির টাকা পুরোটাই কালো , চিরদিনই, তা আয়কর জানেন না!

 

 

নোট যন্ত্রণার জেরে দেশে ইতিমধ্যেই দেশে অন্তত ৭০ জনের মৃত্যু হয়েছে ঠিক সেই সময় বিজেপির ঘনিষ্ঠ তথা প্রাক্তন মন্ত্রী তথা জামিনে মুক্ত জনার্ধন রেড্ডির ৫০০ কোটি টাকা খরচ করে মেয়ের বিয়ে হল। কালো টাকা উদ্ধারে নাকি মোদির এই পদক্ষেপ। ঠিক সেই সময় তাঁর দলের এক সময়ের মন্ত্রী ও কর্ণাটকের খনি  মাফিয়া জেল ফেরত জনার্ধন রেড্ডি তার মেয়ের বিয়ে দিচ্ছেন তা কালো টাকার শ্রাদ্ধ করছেন তা বোঝা মুশকিল। মিডিয়া রিপোর্টে ৫০ হাজার নিমন্ত্রিতদের জন্য কী কী আয়োজন করা হয়েছে বা কীভাবে মণ্ডপ সোজ্জা হয়েছে তা বিস্তারিতভাবে জানা যাচ্ছে। যেটা চেপে যাওয়া হচ্ছে তা হল এই কথাটা হাল্কাভাবে চেপে যাওয়া হয়েছে

ছবি ফাইল, সূত্র  দ্য হিন্দু