তাপস পালের ৩ দিনের CBI এর হেফাজত

তাপস পালকে ৩ দিনের জন্য CBI হেফাজতে পাঠাল ভূবনেশ্বরের এক আদালত। শুক্রবার( ৩০ ডিসেম্বর)   ৪ ঘন্টা ধরে দু দফার জেরার পর রোজভ্যালিকাণ্ডে তাপস পালকে গ্রেফতার করে সিবিআই। তৃণমূলের এই সাংসদ রোজভ্যালির ফ্লিম ডিভিশনের ডিরেক্টর ছিলেন। অভিযোগ রোজভ্যালি থেকে যে টাকা তাপস পাল নিয়েছিলেন তাঁর যথোপযুক্ত কারণ তিনি দেখাতে পারেননি। এর আগে গত বছর মার্চ মাসেও CBI তাপস পালকে জেরা করে। তল্লাশি চালান হয় তাঁর ফ্ল্যাটেও। পর বেশকিছুদিন পুরো চিটফান্ড তদন্তে ঝিমোনোর পর হঠাত্ সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় ও তাপস পালকে  জেরার জন্য নোটিস পাঠায় CBI। আর তার পরই গ্রেফতার করা হল তাপস পালকে । মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ইতিমধ্যেই অভিযোগ করেছেন নোটবন্দিতে তিনি  সরব হওয়ায় তাদের দলের নেতাদের হেনস্তা করা হচ্ছে। সারদার থেকে কয়েকগুন বড় চিটফান্ড কেলেঙ্কারি হল রোজভ্যালি। অন্তত ১৫ হাজার কোটি টাকার কেলেঙ্কারি হল রোজভ্যালি। কয়েকদিন আগেই রোজভ্যালির ১২৫০ কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করে ইডি। কিন্তু প্রশ্ন উঠছে এতদিন ধরে CBI চুপ করে বসেছিল কেন?