চকোলেটে ড্রাগের ব্যবসা কেন গ্রেফতার চিকিত্সক?

চিকিত্সকদের বিরুদ্ধে অভিযোগ ভুরিভুরি। টাটার জন্য রোগীদের জীবন নিয়ে ছেলেখেলা করতে তাদরে বাধে না। তবে এখনও পর্যন্ত কোন চিকিত্সক চকলেট বানিয়ে ড্রাগের ব্যবসা করছে এমনটা শোনা যায়নি। কিন্তু এই অভিযোগে হায়দরাবাদ থেকে গ্রেফতার করা হল সুজাত আলি খান নামে এক চিকিত্সককে।  ২০১৪ সালে সরকারি হাসপাতালের ডাক্তার ছিলেন তিনি। সেই চাকরি ছেড়ে দিয়ে সুজাত চকলেটের মধ্যে মারিজুয়ানা ভর্তি করে ড্রাগের ব্যবসা শুরু করেন বলে অভিযোগ।