শর্মিষ্ঠাদের জামিন,ভাঙড়ের আন্দোলনকে কি নতুন শক্তি জোগাবে?

ভাঙড়ের পাওয়ার গ্রিড বিরোধী আন্দোলনকারীদের বিরুদ্ধে ইউএপিএ আইন প্রয়োগ নিয়ে হাইকোর্ট কড়া প্রশ্ন তোলায়,এবং আন্দোলনের প্রধানমুখ শর্মিষ্ঠা সহ একাধিক জনের জামিন দেওয়ার ফলে ভাঙড়ের প্রতিবাদী মানুষজনদের মধ্যে আবার  উদ্দীপনার সঞ্চার হয়েছে।বেশ কিছুদিন ধরে সেখানে পুলিশ প্রশাসন ও আরাবুল বাহিনির তান্ডবে মানুষ ভয়ে গুটিয়ে যাচ্ছিল,বলে মনে করেন ভাঙড়ের আন্দোলনের সঙ্গে যুক্ত অনেকেই,হাইকোর্টের রায় তাদের নতুন করে আন্দোলনে নামার সাহস জোগাবে বলেই মনে করছেন আন্দোলনকারী স্থানীয় নেতারা। আগামী ৩০ তারিখেই পাওয়ার গ্রিড সংলগ্ন মাঠে মহামিছিলের ডাক দিয়েছে জমি বাস্তুতন্ত্র ও পরিবেশ রক্ষা কমিটি। শর্মিষ্ঠারা জামিন পাওয়াতে অন্দোলন গতি পাবে বলেই বিশ্বাস স্থানীয় নেতাদের। এদিকে হাইকোর্টের বিচারপতি জয়মাল্য বাগচি যেভাবে গণআন্দোলনের কারণে ইউএপিএ প্রয়োগ নিয়ে পুলিশ প্রশাসন ও নিম্ন আদালতকে তিরস্কার করেছেন তাতে ভাঙড় আন্দোলন ভাঙতে সরকারই যে চুড়ান্ত বেআইনি কার্যকলাপ করেছে তা প্রমাণ হয়ে গেছে বলে অনেকেই মনে করছেন।এখান থেকেই ভাঙড়ের আন্দোলনকারীরা তাদের লড়াইয়ের নৈতিক জোর সংগ্রহ করতে চাইছেন।