ঋতব্রতকে দল থেকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত সিপিএমের

0
8

ঋতব্রত বন্দ্যোপাধ্যায়কে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিল সিপিএম। না করে আর উপায় ছিল না। পার্টির নেতাদের বিরুদ্ধে যে সব কথা ঋতব্রত এবিপি আনন্দে বলেছেন তার পর দল থেকে তার বহিষ্কার শুধুমাত্র সময়ের অপেক্ষা ছিল। সেই সিদ্ধান্ত বুধবার নিল সিপিএম রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলী। ৫০ হাজারি হাত ঘড়ি ও পেন ব্যবহার করে বিতর্কে জড়িয়ে পড়েন ঋতব্রত। প্রথমে ৩ মাসের জন্য তাকে সাসপেন্ড করে দল। রাজ্য কমিটি থেকে অপসারণ করা হয় তাকে। যদিও সিপিএমের আরেক কেন্দ্রীয় কমিটির নেতা গৌতম দেবও নাম না করে প্রকাশ কারাটকে এক টেলিভিশন সাক্ষাত্কারে যা নই তাই বললেও তার বিরুদ্ধে কোন পদক্ষেপ নেওয়ার সাহস দেখাতে পারেনি দল। এখন দেখার ঋতব্রত কোন দলে নাম লেখান। SFI এর প্রাক্তন সর্বভারতীয় নেতা ব্রতীন সেনগুপ্ত ও প্রাক্তন সাংসদ লক্ষ্ণণ শেঠের পথে হেঁটে বিজেপিতে যান নাকি দলের প্রতীকে  নির্বাচিত হয়েই মালদার বিধায়ক দিপালী বিশ্বাসের মত তৃণমূলে যোগদেন।