তামিলনাড়ুতে মানুষের চাপের জেরে বেদান্তের তামার কারখানার লাইসেন্স পুনর্নবীকরণ করল না দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ

জনমতের চাপের জেরে অবশেষে পরিবেশ দূষণের জন্য বেদান্ত গোষ্ঠীর তুতিকরনের তামার কারখানার লাইসেন্স পুনর্নবীকরণ করল না তামিলনাড়ুর পরিবেশ দূষণ নিযন্ত্রণ পর্যদ। এবছরের ৩১ মার্চ শেষ হয় ওই কারখানার লাইসেন্সের মেয়াদ।  সাটরলাইটের( বেদান্তের ভারতীয় কোম্পানি) এই কারখানা  বন্ধের দাবিতে গত ২৪ মার্চ রাতে ১৫হাজার মানুষের প্রতিবাদে সামিল হন তামিলনাড়ুর তুতিকোরনে। বাসিন্দাদের দাবি  নতুন করে কারখানার লাইসেন্স আর নবীকরণ  না করা হয়। কারখানার জন্য চারপাশের জল ও বায়ু দূষিত হচ্ছে বলে অভিযোগ তাদের। এই দাবি তে সরব নাগরিকরা রবিবারও বন্ধ রেখেছেন তুতিকরণের দোকানপাট।

২০১৩ সালের মার্চেও একবার বন্ধ হয়েছিল এই কারখানা। সেবার গ্যাস লিকের কারণে। এর পরে তা ফের চালু হয়ে যায়। সুপ্রিম কোর্টও বেদান্তের এই কারখানাকে ১০০ কোটি টাকা জরিমানা করেছিল একসময়। কিন্তু তার পর সব আগের মতই। ভূপালের পরেও আজও আমরা শিক্ষা নিতে রাজি নই। করপোরেট লোভের সামনে  মানুষের সম্বল বোধ হয় শুধুই প্রতিবাদ। তা আবারো প্রমাণ করলেন তুতিকোরণের মানুষ।