‍‍ট্রাম্প- কিমের বৈঠকের পিছনের কারণ কী?

 বেশ কয়েক মাস ধরে দুনিয়াজুড়ে উত্তর কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট কিম জংয়ের উনের বিরুদ্ধে লাগাতার প্রচার চালানোর পর হঠাত্ ডিগবাজি  অামেরিকার।( বাংলার ২৪ ঘন্টা চ্যানেল ধারাবাহিক ভাবে প্রচার করে গেল কিমের  নিষ্ঠুরতা , যৌন লালসা ) সিঙ্গাপুরে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্র নায়কের শীর্ষ সম্মেলনের পর  কিমের ভূয়সী প্রশংসা করলেন ট্রাম্প। অতীতকে ভুলে গিয়ে সামনে এগিয়ে যেতে চান তারা, জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। মিডিয়া রিপোর্ট অনুযায়ী কিম কথা দিয়েছেন ধীরে ধীরে পারমাণিক অস্ত্র মুক্ত হয়ে উঠবে তার দেশ। অার ট্রাম অাচমকাই ঘোষণা করেছেন দক্ষিণ কোরিয়ার সঙ্গে  যৌথ সামরিক মহড়া বন্ধ করছে অামেরিকা। কোরিয়া উপদ্বীপে যুদ্ধের ভাবনাটা প্ররোচনামূলক ও ব্যয়সাপেক্ষ তা মেনে নিয়ে অাপাতত তা থেকে সরে অাসার কথা ঘোষণা করেছেন ট্রাম্প। এসব ভাল কথা বোঝা গেল। কিন্তু এই ১৮০ ডিগ্রি ডিগবাজি কেন? চিনকে টার্গেট করতেই কি উত্তর কোরিয়ার বন্ধুত্ব চাইছে ওয়াশিংটন। নাকি এর পিছনে রয়েছে অন্য খেলা?  ট্রাম্প যতই পাগলামি করুন তিনি যাই সিদ্ধান্ত নেবেন তা অবশ্য সে দেশের পুঁজিপতি শ্রেণির পক্ষে হলে তবেই তা হবে। তাই ট্রাম্প- কিমের বৈঠকের প্রকৃত কারণ এখন স্পষ্ট নয়, অন্তত অামাদের কাছে নয়।

ছবি cnbc.com এর সৌজন্যে