রিলায়েন্সের বিরুদ্ধে গ্যাস ‘চুরির’ অভিযোগ খারিজ করে উল্টে ভারত সরকারের উপর ৫৬ কোটির ক্ষতিপূরণ চাপাল অান্তজার্তিক ট্রাইবুন্যাল

ONGC  এর এলাকা থেকে গ্যাস ‘চুরির’ অভিযোগকে নাকচ করে দিয়ে  মুকেশ অাম্বানির রিলায়েন্সেরে নেতৃত্বাধীন এক কনসোর্সিয়ামের( বিপি ও নিকো) পক্ষে রায় দিল অান্তর্জাতিক সালিশি ট্রাইব্যুনাল। সেই সঙ্গে ভারত সরকারকে রিলায়েন্সকে ৫৬ কোটি টাকার মত ক্ষতিপূরণও দিতেও বলেছে ট্রাইব্যুনাল।

KG বেসিনের D6 ব্লক থেকে ONGC এর জন্য নির্দিষ্ট এলাকা থেকে অবৈধভাবে গ্যাস সরিয়ে নেওয়ার জন্য রিলায়েন্সর কাছে ১.৫৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার( প্রায় ১০হাজার ২০০ কোটি টাকা) ক্ষতিপূরণ চেয়েছিল  কেন্দ্র। বিষয়টি ক্ষতিয়ে দেখার জন্য গঠিত বিচারপতি এপি শাহ প্যানেলও গ্যাস  ‘চুরির’ কথা জানিয়েছিল। এর আগে মার্কিন সংস্থা D&M তার রিপোর্টে জানিয়েছিল  রিলায়েন্সে অবৈধভাবে ওএনজিসির এলাকা থেকে  গ্যাস তুলে নিয়েছে। টাকার অঙ্কে প্রায় ১১ হাজার কোটি টাকা। যদিও ONGC এর দাবি ছিল সাত বছর ধরে ৩০ হাজার কোটি টাকার মত তাদের এলাকা থেকে গ্যাস হাপিস  করেছে রিলায়েন্স। এর বিরুদ্ধে অান্তর্জাতিক ট্রাইব্যনালের দ্বারস্থ হয় মুকেশ অাম্বানির রিলায়েন্স।

শুধু যে ONGC এর এলাকা থেকে অবৈধভাবে রিলায়েন্স গ্যাস সরিয়েছে তাই নয়, সরকারকে ঠকিয়েছে রিলায়েন্স। ২০১২-১৪ সালের মধ্যে KG বেসিনের D6 ব্লকের গ্যাস উত্তোলনের হিসাবে ১৬০ কোটি ডলার( ডলার পিছু ৬০ টারা ধরলে প্রায় ৯৬০০ কোটি টাকা) বেশি খরচ দেখিয়েছে মুকেশ আম্বানির সংস্থা রিলায়েন্স। এমনটাই জানিয়েছিল ক্যাগ।এর আগেও খরচ বেশি দেখিয়ে সরকারকে ঠকানোর বিষয়টি জানিয়েছিল ক্যাগ।  গ্যাস উত্তোলনের ক্ষেত্রে খরচ বেশি দেখালে সরকারকে মুনাফার অংশ কম দিতে হয় রিলায়েন্সকে।তাই দীর্ঘদিন ধরে এই কারচুপি করে আসছে রিলায়েন্স। ক্যাগ আবারও জানিয়েছে চুক্তির বাইরে গিয়ে খনন করায় KG  ব্লকের ৮৩১.৮৮ স্কোয়ার কিমি অংশ রিলায়েন্সের থেকে সরকারের নিয়ে নেওয়া উচিত। তবে ক্যাগ কী বললো তাতে রিলায়েন্সের কী এসে যায়। এরাজ্যের প্রাক্তন রাজ্যপাল গোপালকৃষ্ণ গান্ধী কিছুদিন অাগে এক অনুষ্ঠানে বলেছিলেন রিলায়েন্স এক সমান্তরাল রাষ্ট্র, লুঠ করছে দেশের প্রাকৃতিক সম্পদ। তাঁর বক্তব্যেও অবশ্য রিলায়েন্সের কিছু অাসে যায় না।

, ,