চক্রান্তের অভিযোগ তুললেও ধর্ষণের নালিশে অস্বস্তি রাজ্য বিজেপিতে

0
3

বেহালার বাসিন্দা এক মহিলার দায়ের করা ধর্ষনের অভিযোগে সোমবারই দিল্লি থেকে গ্রেপ্তার করে আনা হয়েছে এক সময়কার রাজ্য বিজেপির সাধারণ সম্পাদক(সংগঠন)ও বর্তমানে আরএসএসের সক্রীয় কর্মী অমলেন্দু চট্টোপাধ্যায়কে।কলকাতা পুলিশের এই সক্রিয়তায় চক্রান্তের গন্ধ পাচ্ছেন বলে জানিয়েছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। ঘটনা হল একসময় বিজেপির সক্রিয় কর্মী বলে নিজেকে দাবি করে বেহালার বাসিন্দা বছর পয়তাল্লিশের এক মহিলা অমলেন্দু চট্টোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ আনার পাশাপাশি একাধিক বিজেপি নেতা ও সঙ্ঘ কর্মীর বিরুদ্ধে তাঁর সঙ্গে আপত্তিজনক আচরণের অভিযোগ দায়ের করেছেন।সেই তালিকায় বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের নামও আছে।এ রাজ্যে বিজেপি নেতাদের বিরুদ্ধে এলপিজি দুর্নীতি নিয়েও মামলা হয়েছে,সেই মামলায় গত শুক্রবারই গ্রেপ্তার করা হয়েছে বিজেপি নেতা রণজিত মজুমদারকে।মহিলার অভিযোগের ভিত্তিতে যে ভাবে দিল্লি থেকে অমলেন্দু চট্টোপাধ্যায়কে ধরে আনা হয়েছে তাতে সেই মহিলা যখন দিলীপ ঘোষ,বিজেপির বর্তমান সাধারণ সম্পাদক(সংগঠন) সুব্রত চট্টোপাধ্যায় ও আর এক সঙ্ঘ কর্মী বিদ্যুত মুখোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধেও তাঁর সঙ্গে আপত্তিজনক আচরণের অভিযোগ করেছেন তাতে দিলীপবাবুদের আশঙ্কা পুলিশ তাঁদের বিরুদ্ধেও সক্রিয় হয়ে উঠতে পারে।আর সেই জন্যই দিলীপবাবুর হুশিয়ারি তারা রাজনৈতিক চক্রান্তের শিকার হলে তা নিয়েও আন্দোলনের পথে নামবেন।দিলীপবাবু ঐ মহিলাকে সরাসরি চ্যালেঞ্জ জানিয়েছেন সরাসরি সামনাসামনি এসে কথা বলুন,তাঁর সব প্রশ্নের জবাব দিতে তিনি তৈরি বলে দিলীপবাবু জানিয়ে দেন।তবে ঐ মহিলা যে একসময় রাজ্য বিজেপির সক্রিয় কর্মী ছিলেন তা দিলীপবাবুর কথাতেই পরিষ্কার হয়ে যায়।দিলীপবাবু বলেন তিনি সভাপতি হবার পর ঐ মহিলা তাঁর কাছে আবদার করে বলেছিলেন তিনিই নাকি দিলীপবাবুকে রাজ্য বিজেপির সভাপতি হতে সাহায্য করেছেন,তাই দিলীপবাবুরও উচিত,তাকে ভাল পদ দেওয়া।দিলীপবাবুর দাবি এর পরেই তিনি বুঝে যান ঐ মহিলার মতলব সুবিধার নয় তাই তিনি ওঁর সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করে দেন।দিলীপ ঘোষের এই স্বীকারুক্তিতেই পরিষ্কার ঐ মহিলা একসময় রাজ্য বিজেপিতে প্রভাব খাটানোর মত অবস্থায় ছিলেন।তাই তাঁর অভিযোগকে কেন্দ্র করে যে বিতর্ক তা যে রাজ্য বিজেপিকে যথেষ্ট অস্বস্তিতে ফেলেছে তা নিয়ে কোন সন্দেহ নেই।আর সেই অস্বস্তি কাটাতেই দিলীপবাবুদের বেশী বেশী করে রাজনৈতিক চক্রান্তের অভিযোগ তুলতে হচ্ছে।