গান্ধীর জন্মদিনে কৃষকদের মিছিলে লাঠি পেটা দিল্লি পুলিসের

এদেশে নীরব মোদি বিজয় মালিয়াদের দেশ ছেড়ে পালানো ঠেকাতে তত্পর হয় না সরকার বা এজেন্সি। তাদের নাকের ডগা দিয়ে ড্যাং ড্যাং করে দেশ ছাড়ে একের পর এক প্রতারক। অথচ কৃষকদের সামান্য দাবির মিছিল রুখতে কাঁদানে গ্যাস, জলকামান ব্যবহার করতে পিছপা হয় না খোদ কেন্দ্রের পুলিস। উত্তরপ্রদেশ থেকে ৩০ হাজার কৃষকের এক মিছিলকে দিল্লিতে প্রবেশ করতে দিল না দিল্লি পুলিস। বদলে লাঠি, জলকামান দিয়ে তাদের স্বাগত জানাল পুলিস। গত ২৩ সেপ্টেম্বর  উত্তর প্রদেশের বিভিন্ন অংশ থেকে হেঁটে ও ট্রাকটর করে হাজার হাজার মানুষ দিল্লির উদ্দেশে রওনা দেন। কৃষি ঋণ মুকুব, ডিজেলে ভরতুকি সহ বেশ কয়েকটি দাবি নিয়ে ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়ন বা বিকেইউ এর ডাকা এই মিছিল শেষ হওয়ার কথা ছিল দিল্লি কিষাণ ঘাটে। দিল্লিতে ঢুকতে না দেওয়ার জন্য পদযাত্রায় অাসা কৃষকদের দিল্লি -উত্তরপ্রদেশে সীমানায় অাটকে দেয় পুলিস। তার জেরেই ধুন্ধুমার বেঁধে যায়। মিছিল দিল্লিতে ঢুকতে না দিলেও বিকেইউ এর নেতাদের সঙ্গে কথা হয় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের। কেন্দ্রীয় কৃষি প্রতিমন্ত্রী গজেন্দ্র শেখায়ত জানিয়েছেন কৃষকদের সঙ্গে সরকারের সমঝোতা হয়েছে। কিন্তু বিকেইউ তরফে জানানো হয়েছে ১১ দফা দাবির মধ্যে ৭টি কেন্দ্রের সম্মতি মিলেছে বাকি ৪টিতে নয়।

সূত্র এনডিটিভিডটকম