শান্তিপুরে বিষমদে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১২, সরকারের ২লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণের সিদ্ধান্তে ফের বিতর্ক

ফের রাজ্যে বিষমদে মৃত্যু হল । শান্তিপুরে বিষমদে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১২। বিষমদ খেয়ে অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি ২৫।  মৃতদের পরিবারকে ২ লক্ষটাকা ক্ষতিপূরণ ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার এর জেরে  তড়িঘড়ি সিঅাইডি তদন্তের  নির্দেশ দিয়েছে রাজ্য সরকার। সাসপেন্ড করা হয়েছে ৩ কর্তা সহ  ৮ কনস্টেবলকে। গ্রেফতার করা হয়েছে ৪ জনকেও।  তবে এই প্রথম নয়, এর অাগেও চোলাই মদ খেয়ে মৃত্যুর একাধকি ঘটনার পরও হেলদোল নেই সরকার বা প্রশাসনের। সবাই সব কিছু জানে , চোলাই এরাজ্যে এখন শিল্পের অাকার নিয়েছে বলে মত অনেকের। রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় প্রকাশ্যেই চোলাই বিক্রি হলেও প্রশাসন কোন পদক্ষেপ নেয় না বলে অভিযোগ। ২০১১ সালে  দক্ষিণ ২৪ পরগণার সংগ্রামপুরে চোলাই মদের বলি হয়েছিলেন ১৭৪জন মানুষ। সেবারও মৃতদের পরিবারকে ২ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণের কথা ঘোষণা করেছিল। তাই নিয়ে বিতর্ক অাদালত পর্যন্ত গড়িয়েছিল। প্রশ্ন উঠছে চোলাইের ঠেক না ভেঙে মৃতদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ সরকার ঠিক কাদের পাশে দাঁড়াতে চাইছে?