চিঠি লিখে কমিশনের কোপে স্বরাষ্ট্র সচিব

নজির বিহীনভাবে রাজ্যে নির্বাচন প্রক্রিয়া চলাকালীন রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিবকে পদ থেকে সরিয়ে দেওয়ার ঘোষণা করল দেশের নির্বাচন কমিশন।বুধবার বিকেলে রাজ্যকে চিঠি দিয়ে নির্বাচন কমিশন জানিয়ে দিয়েছে রাজ্যের স্বরাষ্ট্রসচিবের দায়িত্বে আর থাকতে পারবেন না অত্রী ভট্টাচার্য।তাঁর বদলে আপাতাত মুখ্যসচিবই অতিরিক্ত দায়িত্ব হিসেবে স্বরাষ্ট্র সচিবের দায়িত্ব সামলাবেন।সূত্র মারফত জানা যাচ্ছে একদিন আগে নির্বাচন কমিশনের কাছে চিঠি দিয়ে রাজ্যের স্বরাষ্ট্রসচিব অত্রী ভট্টাচার্য জানিয়েছিলেন এ রাজ্যে কেদ্রীয় বাহিনী অনেক জায়গাতেই সাধারণ ভোটারদের ভয় দেখাচ্ছে।তিনি আর লিখেছিলেন,এ রাজ্যের রাস্তা ঘাট ও পরিস্থিতি কেন্দ্রীয় বাহিনীর পক্ষে চেনা ও বোঝা সম্ভব নয়,তাই রাজ্য পুলিশের আধিকারিকদের সহায়তাতেই তাঁদের কাজ করা উচিত।এই চিঠি নির্বাচন কমিশনকে অত্যন্ত অসন্তুষ্ট করে বলে খবর।কমিশন স্বরাষ্ট্র সচিবের এই বক্তব্যকে কমিশনের কাজে হস্তক্ষেপ করতে চাওয়ার সামিল বলেই বিবেচনা করে।এর ফলশ্রুতিতেই স্বরাষ্ট্র সচিবকে পদচ্যুত করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।এদিকে নবান্ন থেকে পাওয়া একটি সূত্র বলছে মুখ্যমন্ত্রীর পরামর্শেই কমিশনকে এরকম চিঠি লেখেন স্বরাষ্ট্র সচিব,য়ার পরিণতিতে খুবই অসম্মানজনক পদচ্যুতি হল অত্রী ভট্টাচার্য়ের।এমনকি অত্রী ভট্টাচার্যের কাছ থেকে পার্বত্য বিষয়ক দপ্তরের দায়িত্বও কেড়ে নেওয়ার কথা জানিয়ে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন।কোন রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিবকে এভাবে সরিয়ে দেওয়ার নজির কমিশনের ইতিহাসে নেই বলেই জানা যাচ্ছে।বিরোধীরা এ নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে বিঁধতে ছাড়ছেন না,বলছেন আমলাদের দলদাস বানিয়ে যেভাবে সরকার চলছে তাতে রাজ্যের ভাবমূর্তিতে প্রতিদিনই কালি পড়ছে।রাজ্য সরকার এই ঘটনাকে কমিশনের পক্ষপাতিত্ব বলেই মনে করছে।