অসম NRCএর প্রাক্তন কোঅর্ডিনেটর প্রতীক হাজেলার বিরুদ্ধে FIR কেন?

0
33

সাতদিন ডেস্কঃ অসমে নাগরিকপঞ্জী তৈরির দায়িত্বে থাকা সরকারি অাধিকারিক প্রতীক হাজেলার বিরুদ্ধে FIR দায়ের করল APW নামের একটি সংস্থা। সিবিঅাই এর কাছে দায়ের করা অভিযোগে এনঅারসির জন্য বরাদ্দ টাকার নয়ছয়ের অভিযোগ করা হয়েছে প্রতীক হাজেলার বিরুদ্ধে।APW এর তরফে অভিযোগ করা হয়েছে NRC কাজে  অবসরপ্রাপ্ত সরকারি অাধিকারিকদের মোটা বেতনে নিয়োগ করেছিলেন হাজেলা। অথচ তারা ঠিক কী কাজ করেছেন তার কোন হিসাব নাকি পাওয়া যাচ্ছে না।

APW এর অভিযোগ অসমে NRCএর কাজে যে ১৬০০ কোটি টাকা মঞ্জুর করা হয়েছে সেই টাকার অনেকটাই নয়ছয় করা হয়েছে। ২২৫০০ টাকার ল্যাপটপের দাম দেখান হয়েছে ৪৪৫০০ টাকা। অন্তত এমনটাই সংস্থার অভিযোগ। ।  APW   অার্জির ভিত্তিতে সুপ্রিম কোর্ট অসমে এনঅারসি তালিকা তৈরির নির্দেশ দেয়।

এর অাগে  হঠাত্ করে প্রতীক হাজেলাকে  মধ্যপ্রদেশে বদলি করার জন্য কেন্দ্রকে নির্দেশ দেয় সুপ্রিম কোর্ট। সেই মত মধ্যপ্রদেশে প্রতীক হাজেলাকে বদলিও করে দেয় কেন্দ্র। কেন এই অাদেশ তার অবশ্য ব্যাখ্যা দেয়নি  সুপ্রিম কোর্ট। অসমে নাগরিকপঞ্জী তৈরির কো অর্ডিনেটর ছিলেন এই অাইএএস অফিসার। অসমে নাগরিকপঞ্জী চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশিত হওয়ার পর১ ১৯ লক্ষ লোককে একধাক্কায় ভারতীয় নাগরিক হিসাবে বাদ দেওয়া হয়। যাদের মধ্যে অধিকাংশই হিন্দু। তাই নিয়ে সরকার, বিজেপি ও হেজেলাকে সমালোচনার মুখে পড়তে হয়। হঠাত্ সুপ্রিম কোর্ট নিজের অাদেশের পিছনে কারণ না দেখিয়ে এমন তড়িঘড়ি বদলির সিদ্ধান্ত  নেওয়ার পর এবার দুর্নীতির অভিযোগে প্রতীকের বিরুদ্ধে এফঅাইঅার। রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে এনঅারসি নিয়ে অসমে বিজেপির পরিকল্পনা ভেস্তে যাওয়াতেই প্রতীক হাজেলার বিরুদ্ধে চটেছে শাসকদল।