উমর খালিদের ১০ দিনের পুলিসি হেফাজত

0
33

সাতদিন ডেস্কঃ JNU এর প্রাক্তন ছাত্র নেতা উমর খালিদকে সোমবার ১০ দিনের জন্য পুলিসি হেফাজতে পাঠানোর নির্দেশ দিল দিল্লির এক অাদালত। পুলিসের তরফে ১০ দিনের জন্য খালিদের হেফাজত চাওয়া হয় অাদালত তা মঞ্জুরও করে। দিল্লি দাঙ্গার ষড়যন্ত্রের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগ টানা ১১ ঘন্টা জেরার পর রবিবার রাতে উমর খালিদকে গ্রেফতার করে দিল্লি পুলিস।

দিল্লির যাফুরবাবাদে CAA বিরোধী প্রতিবাদ স্থল থেকে বিক্ষোভকারীদের সরিয়ে না দিলে তারা পদক্ষেপ নেবেন । বিজেপি নেতা কপিল মিশ্রের এই উস্কানিমূলক বক্তব্যের পর ২৩ থেকে ২৬ ফেব্রুয়ারি উত্তর পূর্ব দিল্লিতে দাঙ্গা হয়। নিহত হন অন্তত ৫৪জন মানুষ।

বিজেপি নেতা কপিল মিশ্রের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা না নেওয়ায় প্রশ্ন তুলেছেন মানবাধিকার কর্মীরা। এর পর JNU  এর ছাত্রী  দেবাঙ্গান কলিতা, নাতাশা নারিয়াল ও জামিয়ার ছাত্রী  সাফুরা জারগার সহ একাধিক গণ অান্দোলনের কর্মীকে গ্রেফতার করে দিল্লি পুলিস। চার্জশিটে নাম ওঠে সিপিএম নেতা সীতারাম ইয়েচুরি, যোগেন্দ্র যাদব, অপূর্বানন্দ ও জয়িতা ঘোষদের।

একদিকে ভিমা করেগাও মামলায় সোমা সেন সুধাভরদ্বাজ, ভারভারা রাও, অানন্দ তেলতুম্বদে, গৌতম নওলখা সহ ১১জন বু্দ্ধিজীবীকে গ্রেফতার করে  ২বছর জেলে রাখা হয়েছে। সম্প্রতি ওই মামলায় মিথ্যে সাক্ষী দিতে রাজি না হওয়ায় গ্রেফতার হয়েছেন দিল্লির অধ্যাপক হানিবাবুকেও। অন্তত এমনটাই অভিযোগ করেছেন হানির স্ত্রী। এবার দিল্লি দাঙ্গার প্রেক্ষিতে বিরোধী স্বরকে স্তব্ধ করার চক্রান্ত হচ্ছে বলে অভিযোগ করছেন মানবাধিকার কর্মীরা। উমর খালিদের গ্রেফতার তারই অঙ্গ বলে মনে করেন তারা। অবিলম্বে উমের মুক্তির দাবি জানান হয়েছে বিভিন্ন সংগঠনের তরফে।