করোনার ভ্যাকসিনের এদেশের বাজার কি ৮০ হাজার কোটি টাকার?

0
23

সাতদিন ডেস্কঃ মানব শরীরে করোনার প্রতিষেধক ভ্যাকসিনের  প্রয়োগ এখনও সফল হয়েছে কি না তা নিশ্চিতভাবে জানা যায়নি । এর মধ্যেই ভ্যাকসিন তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছে সিরাম ইনস্টিটিউট।এবার সিরামের কর্ণধার অাদর পুনাওয়ালা এক টুইট করে জানতে চেয়েছে সকল ভারতবাসীকে ভ্যাকসিন দেওয়ার জন্য অাগামী বছর যে ৮০ হাজার কোটি টাকা লাগবে তা ভারত সরকারের কাছে অাছে কিনা? পুনাওয়ালা মনে করেন  তাদের থেকে ভ্যাকসিন কিনে বিনামূল্যে দেশবাসীকে দেবে ভারত সরকার।

পুনাওয়ালের এই টুইটের পর এদেশে ভ্যাকসিনের বাজার কতটা তার অান্দাজ পাওয়া গেল। এর অাগে পুনাওয়ালা জানিয়েছিলেন সমস্ত ভারতবাসীকে ভ্যাকসিন দিতে অন্তত ২ বছর সময় লাগবে। টুইট থেকে এটা স্পষ্ট নয় প্রতিবছর এই খরচ হবে নাকি এক বছরেই সবাইকে ভ্যাকসিন দেওয়া সম্ভব হবে। হিউম্যান ট্রায়ালের চূড়ান্ত সফলতার অাগেই এদেশে তাঁদের সংস্থায় অক্সফোর্ড অ্যাস্ট্রাজেনিকার ভ্যাকসিন উত্পাদন শুরু করে দিয়েছে সিরাম।

 বেশকিছুদিন অাগে সিরাম জানিয়েছিল ভারত সহ ৯২টি উন্নয়শীল দেশের জন্য ২০২১ সালের প্রথমেই ১০ কোটি ডোজ বাজারে ছাড়বে তারা। এর দাম ৩ ডলার নির্দিষ্ট করা হয়েছে। ভারতীয় মুদ্রায় ২২৫টাকা। এর জন্য সিরামকে ১৫ কোটি ডলার দেবে বিল ও মিলিন্ডা গেটসের ফাউন্ডেশন। শুধু অক্সফোর্ডে অ্যাসট্রাজেনিকার ভ্যাকসিন নয়  নভাভ্যাক্সের ভ্যাকসিনেরও দাম হবে ৩ ডলার।